পাকিস্তানে পৌঁছল সৌদি যুবরাজের- চলতি সপ্তাহে পাকিস্তান সফর করবেন সৌদি যুবরাজ মোহাম্মদ বিন সালমান। এ সফরে দুই দেশের মধ্যে ১০ বিলিয়ন মার্কিন ডলারের বাণিজ্য ও বিনিয়োগ চুক্তি সাক্ষরিত হবে। ইতিমধ্যে যুবরাজ সালমানের ব্যক্তিগত সরঞ্জামবাহী পাঁচটি ‘রহস্যময়’ ট্রাক ইসলামাবাদে পৌঁছেছে। খবর এনডিটিভির। নিরাপত্তা জনিত কারণে সৌদি যুবরাজের সফরের তারিখ আনুষ্ঠানিক ভাবে জানানো হয়নি।

বার্তা সংস্থা ডনের বরাত দিয়ে এনডিটিভি জানিয়েছে ওই পাঁচ ট্রাকে যুবরাজের ব্যায়ামের সরঞ্জাম, ফার্নিচেয়ার ও ব্যক্তিগত কাজে ব্যবহারের জন্য অন্যান্য জিনিস রয়েছে। ওই পাঁচটি ট্রাকে ‘অন্য কিছুও’ থাকতে পারে বলে খবরে বলা হয়েছে। এ ছাড়া যুবরাজের ব্যক্তিগত নিরাপত্তা দল ও সৌদি গণমাধ্যমের প্রতিনিধিরা ইসলামাবাদে পৌঁছেছেন। খবরে বলা হয়েছে, যুবরাজ সালমান পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের বাসভবনে অবস্থান করবেন। তবে তাঁর সফর সঙ্গীদের জন্য ইসলামাদের শীর্ষ দুইটি হোটেল বুক করা হয়েছে।
২ দিনের সফরে সালমান পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ছাড়াও দেশটির শীর্ষস্থানীয় সরকারি কর্মকর্তা ও সামরিক নেতাদের সঙ্গে বৈঠক করবেন।
সুত্র-বি ডি ২৪ লাইভ।

সৌদিতে সেই শতাধিক প্রবাসী এখন জেদ্দা শহরের রাস্তায়সেই শতাধিক প্রবাসী- সৌদিতে বেকার হয়ে জেদ্দা কনস্যুলেটের সাহায্য চাওয়া সেই শতাধিক প্রবাসীকে হঠাৎ তাদের বাসা থেকে বের করে দেওয়া হয়েছে। ফলে তাদের একমাত্র সহায় সম্বল বিছানাপত্র ও পোশাকের ব্যাগ নিয়ে রাস্তায় অবস্থান করছেন।

মঙ্গলবার সকালে তাদের কোম্পানির কর্মকর্তারা কিছু না জানিয়ে হঠাৎ তাদের বের করে দেয়। বর্তমানে তারা সমস্যা সমাধানের আশায় জেদ্দা শহরের ইশারা দাল্লা নামক এলাকায় তাদের কর্মস্থলের কার্যালয় ‘আল বাইক’ এর সামনে অবস্থান করছেন। সৌদি প্রবাসী হবিগঞ্জ জেলার আজিজ খান জানান, কিছুদিন আগে আমরা কনস্যুলেটের সহযোগিতায় বকেয়া বেতন পাওয়া ও আরো কিছুর দাবিতে কোম্পানির বিরুদ্ধে লেবার কোর্টে মামলা করি। হয়ত তাই তারা ক্ষেপে গিয়ে আমাদের ঘর থেকে বের করে দিয়েছে। হয়ত তারা মামলা তুলে নেওয়ার জন্য আমাদেরকে চাপা প্রয়োগ করবে। এ বিষয়ে আমরা জেদ্দা কনস্যুলেটে যোগাযোগ করেছি কিন্তু সন্তোষজনক কোন সাড়া পাচ্ছি না। কনস্যুলেট থেকে বলা হয়েছে যদি কোম্পানির লোকেরা প্রবাসীদের কোথাও নিয়ে যায় তাহলে যাওয়ার পরামর্শ দিয়েছেন। বর্তমানে শতাধিক প্রবাসীর বেশি রাস্তায় অবস্থান করছেন। উল্লেখ্য, গত ০৬ ফেব্রুয়ারি প্রবাসীরাই তাদের সমস্যা সমাধানের আশায় জেদ্দা কনস্যুলেটে ভীর করেছিলেন। তখন সমস্যা সমাধানে কনস্যুলেট আন্তরিকভাবে ব্যাপারটি দেখছিল বলেও জানিয়েছিলেন প্রবাসীরা। ইত্তেফাক

Related Post

Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •