ভাই ও বন্ধুদের সাথে একজন আদর্শ মুসলিমের সম্পর্ক থাকে স্বচ্ছ। তাদের ভ্রাতৃত্ব ও বন্ধুত্ব হয় শুধু আল্লাহর জন্য। বন্ধুর সাথে সে কখনো রূঢ় আচরণ করে না। তাদের সাথে কথা কাটাকাটি করে না। বন্ধুর সাথে এমন কোনো কৌতুক করে না, যা কষ্টদায়ক।

তার কথা ও কাজ হয় এক। সে কখনো দ্বিমুখী আচরণ করে না। কারো গীবত করে না। কারো সাথে ওয়াদাখেলাফি করে না। আমানতের খেয়ানত করে না। কারো অকল্যাণ কামনা করে না।

বন্ধুকে নিজের উপর প্রাধান্য দেয়। তার জন্য দুআ করে। তার ভুলত্রুটি ক্ষমা করে। মনের ভেতর কিছু পুষে রাখে না। কখনো রাগারাগি হলে কথা বন্ধ করে না। সে-ই আগে বেড়ে বন্ধুর সাথে আপোষ করে নেয়। বন্ধুর জন্য তা-ই পছন্দ করে, যা নিজের জন্য পছন্দ করে।

বন্ধু যদি কারো উপর যুলুম করে তাহলে তাকে যুলুম থেকে নিবৃত্ত করে। যদি বন্ধু কারো দ্বারা নির্যাতিত হয় তাহলে তার পাশে দাঁড়ায়। সৎকাজে তাকে সহযোগিতা করে। সম্ভব না হলে মুখে পরামর্শ দিয়ে উৎসাহ দিয়ে শরীক থাকার চেষ্টা করে। বন্ধুকে কোনো কর্তব্য কাজে অবহেলা করতে দেখলে সুন্দর ভাষায় তাকে সতর্ক করে।

Related Post