নিউজিল্যান্ডের ক্রাইস্টচার্চে হ্যাগলি ওভাল মাঠের কাছে সেন্ট্রাল মসজিদে বন্দুকধারীদের এলোপাথাড়ি গুলিতে ২৭ জন নিহত হয়েছেন। ধারণা করা হচ্ছে এ ঘটনায় নিহতের সংখ্যা আরো বাড়তে পারে। দেশটির ওভাল মাঠের কাছে সেন্ট্রাল মসজিদে তামিম ইকবালসহ সফররত বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দলের কয়েকজন খেলোয়াড় জুমার নামাজ পড়তে গিয়েছিলেন। তবে অল্পের জন্য রক্ষা পেয়েছেন তারা।

এই প্রথম নিউজিল্যান্ডে ভয়াবহ অভিজ্ঞতার সম্মুখীন হলেন বাংলাদেশ ক্রিকেটাররা। স্থানীয় সময় দুপুর পৌনে ২টায় এ গুলিবর্ষণের ঘটনা ঘটে।

এরপর সেখানকার পথচারীরা ডিনস এভিনিউয়ের দিকে ক্রিকেটারদের যেতে নিষেধ করেন। এতে আতঙ্কিত হয়ে পড়েন তারা। দ্রুত পার্ক ত্যাগ করে অবস্থান নেন হোটেলে।

এ ঘটনার পর টুইটারে নিজের অভিব্যক্তি প্রকাশ করেছেন উইকেটরক্ষক-ব্যাটসম্যান মুশফিকুর রহিম। তিনি লিখেছেন, আলহামদুলিল্লাহ! আজ ক্রাইস্টচার্চে গোলাগুলির সময় আল্লাহ আমাদের বাঁচিয়েছেন। আমরা অনেক বেশি ভাগ্যবান। এমন কিছু পুনরায় দেখতে চাই না। আমাদের জন্য সবাই দোয়া করবেন।

স্থানীয় গণমাধ্যম সূত্রে জানা যায়, তৃতীয় ও শেষ টেস্টকে সামনে রেখে নিউজিল্যান্ডের ক্রাইস্টচার্চে হ্যাগলি ওভাল মাঠে লিটন দাস ও নাঈম হাসান ছাড়া বাংলাদেশ দলের সবাই অনুশীলন করছিলেন। অনুশীলন শেষে তারা ওই মসজিদে জুমার নামাজ আদায় করতে যান।

ক্রাইস্টচার্চের হ্যাগলি ওভাল মাঠে শনিবার বাংলাদেশ সময় ভোর ৪টায় নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে তৃতীয় ও শেষ টেস্টে মাঠে নামার কথা রয়েছে।

Leave A Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *