সাম্প্রদায়িকতায় বরাবরই একধাপ এগিয়ে ভারত। ধর্ম ও জাতিভেদের অনেক ইস্যুতেই উগ্রতা ছড়িয়েছে দেশটিতে। সাধারণ মানুষদের পাশাপাশি কট্টরপন্থিদের নানা রকম আক্রমণের শিকার হন প্রতিনিয়ত বলিউডের তারকারাও।

সম্প্রতি শিকার হলেন বলিউড তারকা উর্মিলা মাতন্ডকর। অভিনয়ে নেই অনেকদিন। কংগ্রেসের হয়ে নেমেছেন রাজনীতিতে। নির্বাচনেও অংশ নিচ্ছেন। অসাম্প্রদায়িক চেতনায় রাজনীতি করার কারণে সংখ্যালঘুদের কাছে জনপ্রিয় তিনি।

তবে কট্টর হিন্দুত্ববাদীদের অপছন্দের একজনে পরিণত হয়েছেন তিনি। তাদের দ্বারা ব্যাপক ট্রলেরও শিকার হচ্ছেন নায়িকা। শুধু তাই নয়, রাজনীতিতে আসার কারণে পাল্টে দেয়া হয়েছে তার নাম ও ধর্ম।

ভারতের আসন্ন লোকসভা নির্বাচনে মুম্বাই উত্তর কেন্দ্রের কংগ্রেস প্রার্থী উর্মিলা। জোর প্রচারণা চালাচ্ছেন তিনি ভোটারদের বাড়ি বাড়ি। এর মধ্যেই তার পরিবার ও পরিচয় নিয়ে নানা তির্যক মন্তব্যের মুখে পড়তে হয়েছে তাকে।

উর্মিলার স্বামী কাশ্মীরি মডেল ও ব্যবসায়ী মোহসিন আখতর মীর। স্বামীর পরিচয় নিয়েই বারবার কটাক্ষের মুখের পড়েছেন উর্মিলা। সম্প্রতি উইকিপিডায়ায় উর্মিলার নাম বদলে কে বা কারা মরিয়ম আখতার মীর করে দিয়েছে।

সেখানে বলা হয়েছে, মোহসিনের সঙ্গে বিবাহের পর ধর্ম বদলে মুসলিম হয়েছেন তিনি। বদলেছেন নিজের নামও। উর্মিলা থেকে হয়েছেন মরিয়ম।

এই কাণ্ডে ভীষণ চটেছে উর্মিলার পরিবার। মহৎ উদ্দেশ্যে রাজনীতিতে নামা নায়িকাকে নিয়ে কেন নোংরামি করা হচ্ছে সেই প্রশ্নও তুলেছে পরিবারের সদস্যরা। তাদের অভিযোগের আঙুল বিরোধী দল বিজেপির দিকে।

এদিকে এই ঘটনায় আনুষ্ঠানিকভাবে নিন্দা জানিয়েছে উর্মিলার দল কংগ্রেসও। দলটির পক্ষ থেকে বলা হয়েছে, উর্মিলার জনপ্রিয়তায় ভয় পেয়েছে বিজেপি। যে কারণে এইসব অপপ্রচার চালাচ্ছে তারা। তারা সবসময়ই সাম্প্রদায়িকতায় উস্কানি দেয়।

তবে আপাতত এসব নিয়ে মুখ খুলছেন না উর্মিলা। তিনি নিজের মতো করে প্রচার চালিয়ে যাচ্ছেন।

জুমবাংলানিউজ/এসওআর

Related Post

Leave A Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *