২১ তলা থেকে পড়ে যাওয়ার পরও অবিশ্বাস্যভাবে বেঁচে আছেন। শুধু তাই নয় এখন অনেকটাই সুস্থ্য। শিগগিরই ফিরবেন স্বাভাবিক জীবনে। বনানীর এফ আর টাওয়ারে আগুনের সময় নামতে গিয়ে পড়ে যান রেজওয়ান আহাম্মেদ।

বনানীর এফ আর টাওয়ারের ভয়াবহ আগুন। একদিকে ফায়ার সার্ভিসের উদ্ধার তৎপরতা, অন্যদিকে আটকে পড়াদের বাঁচার নানা চেষ্টা। বাঁচার চেষ্টা করেছিলেন রেজওয়ানও। কিন্তু ঘটলো বিপত্তি। পড়ে গেলেন জট পাকিয়ে থাকা ইন্টারনেট আর ডিশ লাইনের তারের ওপর। বেঁচে আছেন কিনা সংশয় ছিল।

কিন্তু দিব্যি বেঁচে আছেন রেজওয়ান। যা নিজের কাছেও অলৌকিক আর অবিশ্বাস্য। রেজোয়ান আহাম্মেদ বলেন, আমি মনে করি এটি সৃষ্টিকর্তার একটি রহমত। এতো উপর থেকে পড়ে যাওয়ার পর আমারতো বেঁচে থাকারই কথা না, কিন্তু আমার তেমন বড় কোন ইনজুরি হয়নি।

কেন এতো বড় ঝুঁকি নিয়েছিলেন তিনি? তিনি জানান, বিল্ডিংয়ের ২১ তলা পর্যন্ত ধোঁয়াচ্ছন হয়ে গিয়েছিল। ঠিকমত শ্বাস নিতে পারছিলাম না। অনেকটা বাধ্য হয়েই এসির প্ল্যাটফর্ম ধরে নিচে নামতে যাই, কিন্তু আগুনের তাপে তা অনেক গরম হয়ে যায়। সেটি আর ধরে রাখার মত অবস্থায় ছিল না। সেটি ছেড়ে দেয়ার সাঙ্গে সঙ্গেই নিচে পড়ে যাই।

রেজওয়ানের চিকিৎসা চলছে ঢাকা মেডিকেলের অর্থোপেডিক বিভাগে। চিকিৎসক জানালেন দ্রুতই স্বাভাবিক জীবনে ফিরতে পারবেন তিনি।

Related Post

Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Leave A Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *