পশ্চিমবঙ্গের নদিয়ার কৃষ্ণনগর লোকসভা কেন্দ্রে প্রচারে গিয়ে সাম্প্রদায়িক উস্কানিমূলক মন্তব্য করার অভিযোগ উঠল তৃণমূল কংগ্রেস নেতা ও কলকাতার মেয়র ফিরহাদ হাকিমের বিরুদ্ধে।
কৃষ্ণনগরে মুসলিম অধ্যুষিত এলাকায় ফিরহাদ হাকিম বলেন, ”এবারের ভোট ইয়ারকি মারার ভোট নয়। আনন্দ করার ভোট নয়। আজকের ভোট মোদী রামের ভোট। কালকে মাথা তুলে থাকতে পারব কিনা, তার ভোট।
তিনি বলেন, আমাদের টুপি পরে নামাজ পড়তে দেবে না। উত্তরপ্রদেশে ছেলে নামাজ পরতে গেলে টুপিটা পকেটে নিয়ে যাওয়ার কথা বলে মা। বজরং দল দেখলে মেরে দেবে। মসজিদে গিয়ে টুপি পরবি”।

কলকাতার মেয়র আরও বলেন, উত্তরপ্রদেশে টুপি পরে যাওয়া মানা। বজরং দল দেখে ফেললে পিটিয়ে মেরে দেবে। সেখানে দাঁড়ি কেটে ফেলছে মুসলিমরা। উপরওয়ালা ছাড়া কারও কাছে মাথানত করব না।”
অসহিষ্ণুতার প্রসঙ্গ টেনে ফিরহাদ হাকিম বলেন, ‘উত্তরপ্রদেশের মানুষ বলছে, গরুর চেয়ে মানুষের দাম কম। লিখে নিন, সাধারণ মানুষকে গরু খাওয়ার জন্য মেরে দিয়েছে বজরং দল।’
ফিরহাদের হাকিমের বিরুদ্ধে সাম্প্রদায়িক উস্কানিমূলক ভাষণ দেওয়ার অভিযোগ করেছে বিজেপি। নির্বাচন কমিশনে নালিশ জানানোর কথাও জানিয়েছে তারা।
এর আগে উত্তরপ্রদেশে মুসলিমদের একজোট হয়ে মহাজোটকে ভোট দেওয়ার আহ্বান জানিয়েছিলেন মায়াবতী। তার পাল্টা আবার যোগী আদিত্যনাথ মন্তব্য করেছিলেন, আলিকে চাই না, বিজেপির সঙ্গে রয়েছে বজরংবলি।

Related Post

Leave A Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *