হঠাৎ ঝড়-বৃষ্টিতে রাজধানীসহ দেশের বিভিন্ন স্থানে ৯ জনের মৃত্যুর সংবাদ পাওয়া গেছে। এর মধ্যে রাজধানীতে সন্ধ্যার তীব্র কালবৈশাখী ঝড়ে বায়তুল মোকারম মসজিদ প্রাঙ্গণের দক্ষিণ অংশে স্থাপিত অস্থায়ী তাঁবু ভেঙে পড়ে একজন নিহত এবং অন্তত ২০ থেকে ২২ জন আহত হয়েছেন। পাশাপাশি রাজধানীর উত্তর বাড্ডায় পার্কিংয়ের দেয়াল ধসে তিনজন নিহতের সংবাদ পাওয়া গেছে। এছাড়া রাজধানীর মোহাম্মদপুরে গাছচাপায় ২ জন আহতের খবর পাওয়া গেছে।

অপরদিকে চাঁপাইনবাবগঞ্জ ও নওগাঁ জেলায় ঝড়-বৃষ্টির সময় বজ্রপাতে চারজনের মৃত্যুর খবর পাওয়া গেছে। চাঁপাইনবাবগঞ্জ সদর উপজেলার বালিয়াডাঙ্গা ইউনিয়নের শ্রীরামপুর এলাকায় বজ্রপাতে দুইজন হলেন, সদর উপজেলার শ্রীরামপুর গ্রামের মৃত হজরত আলীর ছেলে রেজাউল হোসেন (৪০) ও মোতালেব হোসেনের ছেলে মো. মুসা (৩৫)।

অপরদিকে নওগাঁর পোরশা উপজেলায় বজ্রপাতে নিহত দুইজন হলেন, উপজেলার নিতপুর ইউনিয়নের গানুইর গ্রামের আজাদ হোসেনের ছেলে শফিনুর রহমান বিষু (৩২) এবং জেলার শিবগঞ্জ থানার পিঠাইল গ্রামের মতিউর রহমানের ছেলে হাসান আলী (৩০)।

এসময় এ সময় আহত হয়েছেন হজরত আলী (৬০) নামের আরেকজন। তাকে উদ্ধার করে স্থানীয়রা চাঁপাইনবাবগঞ্জ সদর হাসপাতালে ভর্তি করেছে। এছাড়া রাজশাহীর বানেশ্বরে সাবেক ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) চেয়ারম্যান আব্দুস সোবহান সরকার ঝড়ের কবলে পড়ে মারা গেছেন বলে জানা গেছে। শুক্রবার সন্ধ্যায় ঝড়ের সময় তিনি বানেশ্বর বাজারের একটি মুড়ির মিলে ছিলেন। পরে ঝড় শুরু হলে একটি ইট এসে তার মাথার ওপর পড়ে। এতে তিনি গুরুতর আহত হন। তাকে উদ্ধার করে পুঠিয়া স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিলে সেখানে তার মৃত্যু হয়।

Related Post

Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •