একই সঙ্গে পৃথিবীতে আসা- সাকিন আলম স্টার আর মাহিন আলম সান দুই ভাই। একই সঙ্গে তারা পৃথিবীতে আসে, আবার একই সঙ্গে চলে যায়। শুক্রবার দুপুরে খুলনার আড়ংঘাটা থানা এলাকার বড়ইতলা ঘাটে প্রাইভেটকারের ধাক্কায় দুই ভাইয়ের মধ্যে সাকিন নিহত হয়। আহত হয় মাহিন। তাকে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হলে চিকিৎসাধীন অবস্থায় রাতে সেও মারা যায়। সাকিন-মাহিন খুলনা রেলওয়ে পুলিশের এসআই খোরশেদ আলমের ছেলে। তারা ফুলবাড়ীগেট তাহফিজুল সুন্নাহ হাফেজিয়া মাদরাসার চতুর্থ শ্রেণির ছাত্র ছিল।

শনিবার দুপুরে দুই ভাইয়ের মরদেহ গ্রামের বাড়ি ঝিনাইদহ কালীগঞ্জের আগমুন্দিয়া আনা হলে স্বজনদের আহাজারিতে বাতাস ভারি হয়ে ওঠে। নিহতদের বড় চাচা আসলাম হোসেন বলেন, শুক্রবার দুপুরে সাকিন ও মাহিন প্রতিবেশী ওমর ফারুক হৃদয়ের মোটরসাইকেলে করে বাসায় ফিরছিল। পথে বড়ইতলা ঘাট এলাকায় পৌঁছালে একটি প্রাইভেটকার তাদের ধাক্কা দেয়। এতে ঘটনাস্থলেই মোটরসাইকেল চালক মাজহারুল মারা যান। আহত হয় দুই জমজ ভাই। গুরুতর অবস্থায় তাদের খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেয়ার পথে সাকিন মারা যায়। আহত মাহিনকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। পরে রাতে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মাহিনও মারা যায়। জানাজা শেষে তাদের আগমুন্দিয়া পারিবারিক কবরস্থানে দাফন করা হয়েছে। এ ঘটনায় এলাকায় শোকের ছায়া নেমে এসেছে।

Related Post

Leave A Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *