পরামর্শ : সফল হওয়ার জন্য যাযা জানা প্রয়োজন :
১. মুছে ফেলুন : “যদি, কিন্তু, পারি না, হবে না, ওরা পছন্দ করে না, আমি বুঝি না, আমি অনভিজ্ঞ, আমার বুদ্ধি, জ্ঞান নেই, আমার দ্বারা হবে না, আমি বোকা, আমি ক্লান্ত,” এরূপ কথাগুলি মন থেকে মুছে ফেলুন। নিজেকে বলুন, আমি পারিনি তা নয় আমি পেরেছি। সর্বদা ইতিবাচক চিন্তা করুন।
২. কাজ : শুধু এক কাজ নয়, একাধিক কাজ করার চেষ্ঠা করুন। একটি চলে গেলে আরেকটি রয়েই যাবে ।
৩. মানসিক দৃঢ়তাঃ বাস্তবমুখী কর্মপন্থা নির্ধারণ করুন। অবাস্তবমুখী কর্মপন্থা এড়িয়ে চলুন। সৃজনশীল কাজকে প্রাধান্য দিন। বাজে কাজ, সঙ্গ, ছবি, স্থান, কথা, চিন্তা ইত্যাদিকে না বলুন।
৪. ভালোলাগা : প্রেম, ভালোবাসা, সম্মান- কে করল আর কে করল না সেগুলি মোটেও মাথায় আনবেন না।
৫. সময় : সময়কে মূল্যায়ন করুন। সঠিক সময়ে সঠিক কাজ করুন।সময় থেকে সময় বাচিয়ে চলুন।কাজের ঘনত্ব তৈরি করে কাজ করুন।
৬. অতীত : অতীতের ভুলগুলি সামনে রাখুন। অন্যরা কেন ব্যর্থ হল তা ভালোভাবে লক্ষ্য করুন। নিজের কাজকে আগে প্রাধান্য দিন। নিজেকে নিয়ে বেশি ভাবুন।

৭. লোক নির্বাচন : সফল, জ্ঞানী, অভিজ্ঞদের সাথে চলুন।আপনার কাজ অন্যজন কেমন মূল্যায়ন করছে সে দিকে লক্ষ্য রাখুন।
৮. শোনার যোগ্যতাঃ অপরের কথা আগে ভালোভাবে শুনুন, বুঝুন, তারপর উত্তর দিন এবং নিজের কথা বলুন।
৯. চ্যালেঞ্জ গ্রহণ : চ্যালেঞ্জ গ্রহণ করার মানসিকতা রাখুন। কাজের প্রতি গভীর বিশ্বাস রাখুন।সফল হবই তা সবসময় মনে রাখুন।
১০. কী হতে চান : কী হতে চান তার উপরই শুধু কাজ করুন। জ্ঞান এবং বান্তবমূখী অভিজ্ঞতা অর্জন করুন। মনে রাখুন পুথিগত অর্থাৎ পাঠ্য বইয়ের জ্ঞান দিয়ে কখনোই বিখ্যাত ও জনপ্রিয় কোনকিছু হওয়া যায় না। তাই সমাজ, সংসার ও সকল ধরনের পরিবেশ থেকে বাস্তবমূখী শিক্ষা গ্রহণ করুন।
১১. মিশবেন যাদের সাথে : ভালো মন্দ, শিক্ষিত অশিক্ষিত সবার সাথেই মিশুন, সবার কাছ থেকে জ্ঞান নিন তবে নিজের মত করে তা প্রয়োগ করুন।

১২. জ্ঞান অর্জন : শিক্ষিতদের কাছ থেকেই শিক্ষা নিন, অভিজ্ঞদের এবং ব্যর্থদের কাছ দিক্ষা নিন। যা আপনার চলার পথে শক্তি যোগাবে।
১২. তুলনা : নিজেকে কিংবা নিজের কাজকে কখনোই অন্যদের সাথে তুলনা করা থেকে বিরত থাকুন। তবে নিজের কাজ সবার কাছে ১০০% পছন্দনীয় হবে, সেভাবে কাজ করুন।
১৩. যা এড়িয়ে চলবেন : বিপরীত লিঙ্গ(অর্থৎ ছেলে হলে মেয়ে বা মেয়ে হলে ছেলে), মন্দ লোক, মন্দ কাজ, অসৎ সঙ্গ, বাজে ছবি, মন্দ কথা ও চিন্তা, দীর্ঘ সময় টিভি দেখা, ইত্যাদি।
১৪. না বলুন : নেশাকে।
১৫. স্বপ্ন : স্বপ্ন দেখুন তবে বড় স্বপ্ন। সফল হওয়ার স্বপ্ন দেখুন।আপনার স্বপ্নই আপনাকে আপনার সফলতার দিকে পরিচালিত করবে।
১৬. যে শিক্ষা সফল হতে সাহায্য করবে : প্রযুক্তিগত শিক্ষা, সৃজনশীল শিক্ষা, ধর্মীয় শিক্ষা, ইংরেজি শিক্ষা। তাই এদের একটু বেশিই গুরুত্ব দিতে হবে।

Related Post