আপনি কি মাঝে মাঝে হিন্দি গান শুনেন বা বলেন? সাবধান হোন !
কয়েকটা হিন্দী গানের অংশ বিশেষ অর্থসহ দিলাম। প্রথমে তা আগে পড়ুন।
১। তুহি মেরি সাব হ্যায়, সুবাহ হ্যায়, তুহি দিন হ্যায় মেরা, তুহি ম্যারা রব হ্যায়, জাহান হ্যায়, মেরি দুনিয়া -তুমি আমার সবকিছু, আমার সুর্যোদয়, তুমি দিন তুমি… তুমি আমার রব, তুমি আমার পৃথিবী, আমার দুনিয়া তুমি…
২। তুহি আব মেরা দ্বীন হ্যায়, ঈমান হ্যায়, রাব কা শুকরানা, মেরা কালমা হ্যায় তু, আযান হ্যায়, রাব কা শুকরানা। – তুমিই এখন আমার দ্বীন, আমার ঈমান, খোদাকে তাই ধন্যবাদ, আমার কালেমা, তুমি আযান তুমি, রবকে তাই ধন্যবাদ !
৩। তুঝমে রব দিখতা হ্যায়, ইয়ারা ম্যায় ক্যায়া কারু? সাজদে সার ঝুকতা হু, ইয়ারা ম্যায় ক্যায়া কারু? – তোমার মাঝেই রবকে খুজে পাই আমি, প্রিয়া আমি কি করবো? -সেজদার জন্য মাথা ঝুকে যায়, প্রিয়া আমি কি করবো?
৪। খোদা জানে ম্যায় ফিদা হু, খোদা জানে ক্যা বান গায়া হ্যায় তুম মেরে খোদা। -খোদা জানে আমি তোমার ফিদা, খোদা জানে, তুমি হয়ে গেছো আজ আমারি খোদা।

মন্তব্যঃ
এই গানগুলি একবার হলেও আওড়াননি এমন মানুষ মনে হয় খুব কমই আছে। অথচ এর প্রত্যেকটি গানে স্পষ্ট শিরক বিদ্যমান। আর শিরক এমন এক ধরনের গুনাহ যা করলে ঈমান সম্পূর্ণ বিনষ্ট হয়ে যায়, পূর্বের কৃত সকল আমল নষ্ট হয়ে যায়।
হিন্দুরা যেহেতু হলুল এ বিশ্বাসী তাই তারা সবকিছুতেই তাদের রবকে কল্পনা করে থাকে। গানের কথাগুলোতেই সেই বিষয়গুলোই ফুটে উঠেছে। কিন্তু একজন মুসলীম কখনও হলুল আক্বীদায় বিশ্বাস স্থাপন করতে পারে না। কিন্তু তারা জেনে বা না জেনে গানের কথাগুলোকে আওড়ানোর ফলে হিন্দুদের এই আক্বীদায় নিজেকের জাড়িয়ে ফেলছে।
সুতরাং সাবধান হোন হে মুসলিম ভাই ও বোনেরা! আপনার হৃদয়ে যদি ছিটেফোটাও ইমান থেকে থাকে তাহলে আপনি নিজে বুঝতে পারবেন আমার আজকের এই পোস্টের উদ্দেশ্যটা কি!

Related Post