আর কিছুদিন পরেই বাংলাদেশ সফরে আসবে জিম্বাবুয়ে ক্রিকেট দল। অক্টোবর-নভেম্বরে সফরকারীদের বিপক্ষে তিনটি ওয়ানডে ও দুইটি টেস্ট ম্যাচ খেলবে বাংলাদেশ। আর সেই আসরকে সামনে রেখে আগামী ১৫ই অক্টোবর থেকে ফিটনেস ও অনুশীলন করবে মুশফিক-মাশরাফিরা।
ইনজুরির কারণে আসন্ন জিম্বাবুয়ে সিরিজে খেলবেন না দলের দুই সেরা তারকা তামিম ইকবাল ও সাকিব আল হাসান। এছাড়াও ইনজুরির শঙ্কায় রয়েছেন মাশরাফি বিন মর্তুজা, মুশফিকুর রহিম, মাহমুদউল্লাহ রিয়াদের মতো সিনিয়র খেলোয়াড়রা। যার ফলে তরুণদের সামনে সুযোগ রয়েছে নিজেদের প্রমাণ করার।
আসন্ন সিরিজকে সামনে রেখে এরই মধ্যে স্কোয়াড ঘোষণা করেছে জিম্বাবুয়ে। তবে এখনো স্কোয়াড ঘোষণা করেনি বাংলাদেশ দল। তবে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে টাইগারদের একটি সম্ভাব্য স্কোয়াড তৈরি করা হয়েছে।

জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে টাইগারদের সম্ভাব্য স্কোয়াড- মাশরাফি বিন মর্তুজা (অধিনায়ক), ইমরুল কায়েস, লিটন কুমার দাস, মুশফিকুর রহিম, আরিফুল হক, মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ, মোসাদ্দেক হোসেন সৈকত, মুমিনুল হক, নাজমুল ইসলাম অপু, রুবেল হোসেন, মোস্তাফিজুর রহমান, মিথুন আলী, সৌম্য সরকার, মোহাম্মদ আশরাফুল, মেহেদী মিরাজ।
জাতীয় লিগের ১ম ইনিংসে ৫৩ রানের ইনিংস ও বল হাতে ২ উইকেট পেয়েছেন আশরাফুল। খেলেছেন ১০৮টি বল। যেহেতু টেস্টে সাকিব-তামিম-মুশফিক-মাশরাফির কাউকেই পাচ্ছে না বাংলাদেশ। সেহেতু আশরাফুলকে স্কোয়াডে রাখার অনুরোধ করবেন মাশরাফি এমনটাই গুঞ্জন শোনা যাচ্ছে। আর আশরাফুলের সর্বশেষ জাতীয় দলের হয়ে টেস্ট জার্সি গায়ের রেকর্ডটাও বেশ উজ্জল।
উল্লেখ্য, আগামী ২১ অক্টোবর থেকে শুরু হবে জিম্বাবুয়ে সিরিজ।

Related Post