ইন্দোনেশিয়ার রাজধানী জাকার্তা থেকে উড্ডয়নের মাত্র ১৩ মিনিটের মাথায় ১৮৮ আরোহী নিয়ে সোমবার (২৯ অক্টোবর) স্থানীয় সময় সকালে সমুদ্রে বিধ্বস্ত হয় লায়ন এয়ারের একটি বিমান। এর আগের দিন রাতেই বিমানটিতে যান্ত্রিক ত্রুটি ধরা পড়েছিল। যা পরে আবার ঠিক করা হয় বলে দাবি করছেন লায়ন এয়ারের প্রধান নির্বাহী এডওয়ার্ড সিরেইট। খবর জাকার্তা পোস্ট। এ বিষয়ে লায়ন এয়ারের এ প্রধান নির্বাহী বলছেন, ‘গত রবিবার (২৮ অক্টোবর) স্থানীয় সময় রাতে বিমানটি দেনপাসার (বালি) থেকে সেংকারেং (জাকার্তা) এসেছিল। সে সময় এতে কিছু যান্ত্রিক ত্রুটি ধরা পড়ে যা পরে আবার ঠিক করা হয়।’ তবে বিমানটিতে ঠিক কী ধরনের যান্ত্রিক ত্রুটি ছিল তা স্পষ্ট করে বলতে রাজি হননি এ কর্মকর্তা। লায়ন এয়ারের বোয়িং ৭৩৭ নামের সেই যাত্রীবাহী বিমানটির ১৮৮ আরোহীর মধ্যে কেউ বেঁচে আছেন কী না তা এখনো নিশ্চিত করে জানা যায়নি। উল্লেখ্য, ফ্লাইট জেটি-৬১০ সোমবার (২৯ অক্টোবর) স্থানীয় সময় সকাল ৬টা ২০ মিনিটে জাকার্তা থেকে পাংকল পিনংয়ের উদ্দেশে যাত্রা করে। পরে উড্ডয়নের মাত্র ১৩ মিনিটের মাথায় বিমানটির সঙ্গে নিয়ন্ত্রণ কক্ষের সব ধরনের যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে যায়।

Related Post