জীবিকার সন্ধানে মালয়েশিয়ায় যেয়ে লাশ হয়ে ফিরল রাজগঞ্জের মোস্তাক
উত্তম চক্রবর্তী,মণিরামপুর (যশোর)অফিস : মণিরামপুর উপজেলার রাজগঞ্জের ঝাঁপা ইউনিয়নের হানুয়ার গ্রামের দরিদ্র মফিজুর রহমান মোড়লের ছেলে মোস্তাক আহমেদ মোড়ল (২১) জীবন-জীবিকার সন্ধানে স্বপ্নের দেশ মালয়েশিয়ায় যেয়ে লাশ হয়ে ফিরেছেন৷ গতকাল ৪ নভেম্বর ( রবিবার) সকাল সাড়ে ৯টার দিকে নিহত মোস্তাকের মরদেহ গ্রামের বাড়িতে এসে পৌছালে সেখানে এক হৃদয় বিদারক দৃশ্যের সৃষ্টি হয়৷ দরিদ্র পিতা সন্তানের নিথর দেহ দেখে বাকরুদ্ধ হয়ে যান৷ মা লাশের পাশে বার বার ছুটে যাচ্ছেন প্রিয় ছেলের মুখ খানা একবার দেখার জন্য৷ পরিবারের অন্য সদস্যরা কাদছেন অঝোর ধারায়৷ উপস্থিত গ্রামবাসি তাদের শান্তনা দেওয়ার কোনো ভাষা খুঁজে পাচ্ছিলেন না৷ নিহতের বড় ভাই মনিরুল ইসলাম মোড়ল জানান, আমাদের তিন ভাইয়ের মধ্যে মোস্তাক মেঝ৷ জীবিকার জন্য গত দুই বছর আগে স্বপ্নের দেশ মালয়েশিয়ায় যায় মোস্তাক৷ নিয়তির কাছে হার মানতে হয়েছে তাকে৷ গত ১৯ অক্টোবর (শুক্রবার) বিকাল ২টির দিকে দেশটির পেনাং প্রদেশের জালান বেরকামবার পায়া টেরুবোং রিলাউ-এর কাছে নির্মাণস্থলে ওইদিন মুষলধারায় বৃষ্টির কারণে ভূমি ধসের সৃষ্টি হয়৷ সেই ভূমি ধসে মোস্তাক ঘটনাস্থলে নিহত হয়৷ সেখান থেকে মোস্তাকের মৃত দেহ উদ্ধারের পর কাগজপত্র প্রসেস করে মৃত্যুর ১৭দিন পর গতকাল ৪ নভেম্বর (রবিবার) সকালে নিহতের লাশ এ্যাম্বুলেন্স করে গ্রামের বাড়িতে আনা হয়৷ পরে স্থানীয়ভাবে নামাজে জানাজা শেষে পারিবারিক কবরস্থানে দাফন কাজ সম্পন্ন করা হয়৷

Related Post