শ্রীলঙ্কার মাটিতে ২০১৩ সালের গল টেস্টে দেশের ইতিহাসের প্রথম ডাবল সেঞ্চুরি করা ক্রিকেটার তিনি। তবু জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে করা ক্যারিয়ারের দ্বিতীয় ডাবল সেঞ্চুরির মাহাত্ম্যটাই অন্যরকম। কেননা দেশের ইতিহাসের প্রথম এবং বিশ্ব ইতিহাসের উইকেটরক্ষক (চলমান) হিসেবে দুইটি ডাবল সেঞ্চুরি করা প্রথম ক্রিকেটার এখন তিনি। এছাড়াও দেশের মাটিতে, নিজ দেশের দর্শকদের সামনে, গ্যালারিতে থাকা নিজের বাবার সামনে এটিই তার প্রথম ডাবল সেঞ্চুরি। তাই তো উদযাপনেও দেখা গিয়েছে ভিন্নতা।

সিকান্দার রাজার ওভারের পঞ্চম বলে মিডল স্ট্যাম্পের ডেলিভারিটি আলতো করে লেগসাইডে ঠেলে দিয়েই নিজের দুইশতম রানটি নেন মুশফিক। দেশের ইতিহাসের প্রথম ব্যাটসম্যান এবং বিশ্বের প্রথম উইকেটরক্ষক হিসেবে দুইটি ডাবল সেঞ্চুরি করার রেকর্ড গড়েন তিনি। বিশেষ এই সেঞ্চুরির উদযাপনটাও ছিলো বিশেষ ধরনের।

দুইশতম রানটি নিয়েই সেঞ্চুরির পরে যেমন দুই হাত দুই দিকে ছড়িয়ে, বুক চিতিয়ে আকাশপানে চেয়ে উদযাপন করেছিলেন, ঠিক একইভাবে করেন ডাবল সেঞ্চুরি হওয়ার পরেও। তবে এবার করেন বাড়তি উদযাপন। হাতের গ্লাভস খুলে প্যাভিলিয়নের দিকে দুই হাত দিয়ে ভালোবাসা চিহ্ন একে নিজের এই সেঞ্চুরিটি যেন প্রিয়তমা স্ত্রীকে উৎসর্গ করেন তিনি। এরপর নিজের উচ্ছ্বাসের প্রকাশ শেষে মহান সৃষ্টিকর্তার প্রতি কৃতজ্ঞতাস্বরুপ সেজদায় পড়ে যান মুশফিক। দেশের ইতিহাসের ব্যক্তিগত সর্বোচ্চ ২১৯ রানে অপরাজিত থাকেন মুশফিক।

Related Post

Spread the love
  • 749
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    749
    Shares