কুমিল্লার চান্দিনা উপজেলায় দুবাই থেকে আসা যাত্রী নিয়ে মাইক্রোবাসযোগে বাড়ি ফেরার পথে সড়ক দুর্ঘটনায় সহোদরসহ তিনজন নিহত হয়েছেন। এ ঘটনায় আহত হয়েছেন আরও ছয়জন। বুধবার বিকেলে ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের চান্দিনা উপজেলার নূরীতলা এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। নিহতরা হলেন- কুমিল্লার মনোহরগঞ্জ উপজেলার বাদুয়ারা গ্রামের হাজী আয়েজ উল্লাহর ছেলে দুবাই প্রবাসী আব্দুল মান্নান (৪০) তার বড় ভাই আবুল কাশেম (৪২) এবং লক্ষ্মীপুরের বাবুল মিয়ার ছেলে রাকিব হোসেন (২০)। দুর্ঘটনার পর চান্দিনা ফায়ার সার্ভিসের একটি ইউনিট, হাইওয়ে পুলিশ ও স্থানীয়দের নিহতদের মরদেহ উদ্ধার করা হয়। আহতদের উদ্ধার করে হাসপাতালে পাঠানো হয়।

মাইক্রোবাসের চালক পারভেজ বলেন, দুবাই প্রবাসী আব্দুল মান্নানকে নিয়ে আসার জন্য বুধবার ভোরে মনোহরগঞ্জ থেকে তার পরিবারের লোকজনকে নিয়ে ঢাকার বিমানবন্দরে যাই। দুপুর ১টায় আব্দুল মান্নান দুবাই থেকে আসার পর তাদেরকে নিয়ে বাড়ি ফিরছিলাম। বিকেলে ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের চান্দিনা উপজেলার নূরীতলা এলাকায় পৌঁছার পর মাইক্রোবাসটি নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে মহাসড়কের পাশে দাঁড়ানো একটি কাভার্ডভ্যানের পেছনে ধাক্কা লাগে। এতে ঘটনাস্থলেই দুই ভাইসহ তিনজন নিহত হন। এ ঘটনায় নিহত আব্দুল মান্নানের ভাতিজা সালাউদ্দিন (২৫), স্ত্রী হাসিনা বেগম (৩৪), মেয়ে হাফসা, তাকিয়া, তানহা ও গাড়িচালক নূর হোসেন পারভেজ (২৮) আহত হন।

নিহতদের পরিবার সূত্র জানায়, প্রবাসীর বাড়ি ফেরার আনন্দ রূপ নিলো বিষাদে। স্বজনরা করছেন আহাজারি। কাঁদছেন প্রবাসীর বাবা-মা। হাইওয়ে পুলিশ ইলিয়টগঞ্জ ফাঁড়ির ইনচার্জ মনিরুল ইসলাম বলেন, দুর্ঘটনার পর নিহত তিনজনের মরদেহ ও দুর্ঘটনাকবলিত গাড়ি উদ্ধার করা হয়েছে। আহতদের চান্দিনা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে পাঠানো হয়েছে। এদের মধ্যে দুইজনকে আশঙ্কাজনক অবস্থায় কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

Related Post