চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ (চমেক) হাসপাতালের এক চিকিৎসক আত্মহত্যা করেছেন বলে জানিয়েছে পুলিশ।মোস্তফা মোরশেদ আকাশ (৩২) নামের ওই চিকিৎসক চট্টগ্রাম মেডিকেলের ১৩ নম্বর ওয়ার্ডে কর্মরত ছিলেন। তিনি চন্দনাইশ উপজেলার বাংলাবাজার বরকল এলাকার আবদুস সবুরের ছেলে।চট্টগ্রাম শহরে আকাশ থাকতেন চান্দগাঁও আবাসিক এলাকার ২ নম্বর সড়কের একটি বাড়িতে। আত্মহত্যার আগে ফেইসবুকে তিনি লিখেছেন, স্ত্রীর ‘প্রতারণার কারণে’ তার এ সিদ্ধান্ত।

মেডিকেল পুলিশ ফাঁড়ির এএসআই আলাউদ্দিন তালুকদার বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমকে বলেন, বৃহস্পতিবার সকাল সোয়া ৬টার দিকে ডা. আকাশকে হাসপাতালে নিয়ে আসেন তার ভাই। পরে চিকিৎসকরা তাকে মৃত ঘোষণা করেন।“পরিবারের সদস্যরা বলছেন, স্ত্রীর সঙ্গে মনোমালিন্য থেকে তিনি আত্মহত্যা করেছেন। জরুরি বিভাগে কর্তব্যরত চিকিৎসকের ধারণা, ইনজেকশনের মাধ্যমে তিনি নিজের শিরায় বিষ প্রয়োগ করেছেন।”

চান্দগাঁও থানার ওসি আবুল বশর বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমকে বলেন, আকাশের স্ত্রী যুক্তরাষ্ট্রে থাকেন। ২০১৮ সালের সেপ্টেম্বরে একবার দেশে আসার পর তিনি আবার বিদেশে চলে যান।বৃহস্পতিবার ভোর ৫টার দিকে ফেইসবুকে দুটি পোস্টে স্ত্রীর বিরুদ্ধে অভিযোগ করে গেছেন এই চিকিৎসক। তিনি লিখেছেন, “আমাদের দেশেতো ভালবাসায় চিটিং এর শাস্তি নেই। তাই আমিই বিচার করলাম, আর আমি চির শান্তির পথ বেছে নিলাম।”
বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম

Related Post